মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর ২০২২, ০৪:৩৩ পূর্বাহ্ন

আমার বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি করা হচ্ছেঃ টমি মিয়া

রিপোটার:
  • আপডেট টাইম : রবিবার, ১৩ নভেম্বর, ২০২২
  • ২১৩ Time View

মনিরুল ইসলাম: মোঃ আজমান মিয়া (টমি মিয়া) এমবিই, এফ আর এস এ বলেন, আমি রন্ধন শিল্পের উপর গিনেজ রেকর্ডধারী, বিশ্বের দরবারে বাংলাদেশের ঐতিহ্যকে তুলে ধরতে বাঙালি ঐতিহ্যবাহী খাবারকে প্রতিষ্ঠিত করার জন্যে কাজ করে যাচ্ছি। আমার বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা ও উদ্দেশ্য প্রণোদিতভাবে হয়রানি করতে নানা ষড়যন্ত্র হচ্ছে। আমি এর বিরুদ্ধে আইনী পদক্ষেপ নেবো। নিজের বিরুদ্ধে আনীত মিথ্যা মামলা নিয়ে এক বিবৃতিতে টমি মিয়া এসব কথা বলেন।

রোববার ১৩ নভেম্বর লন্ডন থেকে টমি মিয়া তার প্রতিষ্ঠানের প্যাডে পাঠানো এক বিবৃতিতে বলেন, আমি ধারাবাহিকভাবে প্রতি বছর বাংলাদেশ ও ইউকেতে ‘শেফ অফ দ্যা ইয়ার প্রতিযোগিতার আয়োজন করে আসছি। চলতি বছর ২০২২ এর ২৮ ফেব্রুয়ারি
‘কাচ্চি বিরিয়ানি চ্যালেঞ্জ ‘ প্রতিযোগিতারও আয়োজন করি। বাংলাদেশের বেকার সমস্যা নিরসনের লক্ষ্যে মানব সম্পদ উন্নয়নের জন্যে দেশব্যাপী আমার চারটি শেফ ট্রেনিং ইন্সটিটিউট সাফল্যের সাথে অবদান রেখে যাচ্ছে।

তিনি বলেন, এ বছর ২০২২ সালে বাঙালি ঐতিহ্যে লালিত বাঙালি খাবার ও বাঙালি সংস্কৃতিকে বিশ্বের দরবারে তুলে ধরতে ‘টমি মিয়া’স বাংলাদেশ ফুড ফেস্টিভ্যাল এন্ড কালচার’ উৎসবটি যুক্তরাজ্য, যুক্তরাষ্ট্র, ফ্রান্স, সংযুক্ত আরব আমিরাত, ব্রুনাইসহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশে সফল ভাবে আয়োজন করে আসছি।

টমি মিয়া বলেন, আমার এবং আমার প্রতিষ্ঠানের এমডি তাজুল ইসলামের স্বাক্ষর জালিয়াতি করেন আমার ঢাকাস্থ ‘টমি মিয়া’স হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্ট ইন্সটিটিউট এর মার্কেটিং উপদেষ্টা এস এম আলী জাকের। তা প্রমাণিত হওয়ায় তাকে চলতি বছর ২০২২ইং এর মার্চ মাসে বহিষ্কার করা হয়েছে।

এই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে ব্যক্তিগত আক্রোশ থেকে প্রতিশোধ পরায়ণ হয়ে এস এম আলী জাকের আমার এবং আমার প্রতিষ্ঠানের এমডি তাজুল ইসলামের বিরুদ্ধে নানা রকম অপপ্রচার চালায় এবং হয়রানির উদ্দেশ্যে মিথ্যা মামলা দায়ের করে।


এস এম আলী জাকেরের বহিষ্কারের সময় ও তার পরবর্তী সময়কালে আমি ‘টমি মিয়া’স বাংলাদেশ ফুড ফেস্টিভ্যাল’ নিয়ে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে ভ্রমণরত ছিলাম। এরই প্রেক্ষিতে আমি ৮ নভেম্বর ২০২২ সালে যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে টমি মিয়া’স বাংলাদেশ ফুড ফেস্টিভ্যাল উৎসবের কারণে বাংলাদেশে আদালতে স্বশরীরে হাজির হতে পারিনি। আমার পক্ষে আমার প্রতিষ্ঠানের এমডি ও আমার নিযুক্ত আইনজীবী আদালতে উপস্থিত ছিলেন।

তিনি বলেন, উক্ত মিথ্যা মামলা ও উদ্দেশ্য প্রণোদিতভাবে হয়রানির শিকারের কারণে পরবর্তী সকল আইনি পদক্ষেপ আমার প্রতিষ্ঠানের এমডি ও আমার নিযুক্ত আইনজীবী পরিচালনা করবেন।

টমি মিয়া সকল সাংবাদিকবৃন্দ ও শুভাকাক্ষিদেরকে তার সফলতায় ঈর্ষান্বিত হয়ে দেশীয় খাবার ও সংস্কৃতিকে বিশ্বের দরবারে তুলে ধরার ক্ষেত্রে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টিকারী কুচক্রের বিরুদ্ধে সোচ্চার ও সতর্ক থাকার আহবান জানান।

তিনি জানান, আগামি ১৬ নভেম্বর লন্ডনে এক সংবাদ সম্মেলনের আহবান করেছি। উক্ত সম্মেলনে সকল জালিয়াতির বিষয় প্রমাণসহ তুলে ধরব।

Please Share This Post in Your Social Media

এই জাতীয় আরো খবর
© All rights reserved © 2022 deshnews24.com
Theme Customized By Max Speed Ltd.