21 May 2018 , Monday
Bangla Font Download

You Are Here: Home » খেলাধূলা » অস্ট্রেলিয়াকে ২৬৫ রানের লক্ষ্য দিল বাংলাদেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক: মিরপুর টেস্টে অস্ট্রেলিয়াকে বড় লক্ষ্য ছুড়ে দেয়ার সুযোগ ছিল বাংলাদেশের সামনে। সেই সুযোগ হাতছাড়া করেছে মুশফিকুর রহীমের দল। কিন্তু তারপরও সফরকারীদের সামনে ২৬৫ রানের চ্যালেঞ্জিং সংগ্রহই ছুড়ে দিয়েছে বাংলাদেশ।

প্রথম ইনিংসে বাংলাদেশের করা ২৬০ রানের জবাবে ২১৭ রানে গুটিয়ে যায় অস্ট্রেলিয়া। ৪৩ রানের লিড নিয়ে ব্যাটিংয়ে নামা বাংলাদেশ মঙ্গলবার টেস্টের তৃতীয় দিনের শেষ সেশনের শুরুতেই ২২১ রানে গুটিয়ে যায়। ফলে অস্ট্রেলিয়ার সামনে ২৬৫ রানের লক্ষ্যমাত্রা দাঁড়ায়।

মঙ্গলবার ১ উইকেটে ৪৫ রান নিয়ে ব্যাটিংয়ে নামা বাংলাদেশ দিনের এক ঘণ্টা না পেরুতেই তাইজুল-ইমরুলকে হারিয়ে সেই চাপে পড়েছে তামিম-মুশফিকের দৃঢ়তায় ইতোমধ্যেই সেই চাপ অনেকটাই কাটিয়ে ওঠে বাংলাদেশ।

সকালে সাবধানী শুরুর পর দলীয় ৬১ রানের মাথায় নাথান লায়নের বলে তাইজুল লেগ বিফোরের ফাঁদে পড়লে হোঁচট খায় বাংলাদেশ। কিছুক্ষণ পর দলীয় ৬৭ রানের মাথায় ডেভিড ওয়ার্নারকে ক্যাচ দিয়ে তাইজুলকে অনুসরণ করেন ইমরুল।

দ্রুত দুই উইকেট হারানোর ধাক্কা সামলে ওঠে বাংলাদেশ; যাতে নেতৃত্ব দেন তামিম ও মুশফিক। ক্যারিয়ারের ৫০তম টেস্ট খেলতে নেমে প্রথম ইনিংসে হাফসেঞ্চুরি (৭১) করা পর দ্বিতীয় ইনিংসে সেঞ্চুরির স্বপ্ন জাগিয়েও ফিরে যান ৭৮ রান করে।

চতুর্থ ব্যাটসম্যান হিসেবে তামিম ইকবাল আউট হওয়ার পর ক্রিজে মুশফিকুর রহীমের সঙ্গে যোগ দেন সাকিব। লায়নের করা ৫৬তম ওভারের তৃতীয় বলে মিড অফ দিয়ে দারুণ এক চার হাঁকান সাকিব। একই ওভারের পঞ্চম বলে ডাউন দ্য ট্র্যাকে এসে খেলতে গিয়ে মিড অফে প্যাট কামিন্সকে ক্যাচ দিয়ে সাজঘরে ফেরেন তিনি। সাকিবের বিদায়ের পর মুশফিক ও সাব্বিরের জুটিতে এগিয়ে যেতে থাকে বাংলাদেশ।

তবে হঠাৎ তালগোল পাকিয়ে ফেলেন বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানরা। দলীয় ১৮৬ রানের মাথায় পরপর মুশফিক, নাসির ও সাব্বিরের বিদায়ে ব্যাকফুটে চলে যায় টাইগাররা। নাথান লায়নের করা ৬৮তম ওভারের পঞ্চম বল সাব্বির রহমান বোলার বরাবর শট খেলেন। লায়ন বলে আলতো ছোঁয়া লাগান। মুশফিক কাছেই ছিলেন; ক্রিজ থেকে সামান্য বাইরে। কিন্তু কী ঘটতে যাচ্ছে সেটি বুঝতে বিলম্ব করে ফেলেন তিনি। যখন বুঝলেন তখন আমার ক্রিজে ফেরা সম্ভব হয়নি।

মুশফিকের পরপরই বিদায় নেন নাসির। অ্যাস্টন অ্যাগারের বলে উইকেটের পেছনে নাসির হোসেনকে ক্যাচ দিয়ে সাজঘরে ফেরেন তিনি। লায়নের করা পরের ওভারে পিটার হ্যান্ডসকম্বকে ক্যাচ দিয়ে নাসিরকে অনুসরণ করেন সাব্বির।

এর আগে সাকিব আল হাসান ও মেহেদী হাসান মিরাজের বোলিং তোপে পড়ে সোমবার চা বিরতির পর ২১৭ রানে গুটিয়ে যায় অস্ট্রেলিয়া। অ্যাস্টন অ্যাগার-প্যাট কামিন্সের আগে বাংলাদেশের বোলারদের বিপক্ষে যা একটু লড়েছেন ম্যাট রেনশ ও পিটার হ্যান্ডসকম্ব।

অস্ট্রেলিয়ার হয়ে রেনশ ৪৫ এবং হ্যান্ডসকম্ব করেন ৩৩ রান। গ্লেন কামিন্স ২৫ এবং ম্যাক্সওয়েল আউট হন ২৩ রান করে। ডেভিড ওয়ার্নার (৮) এবং উসমান খাজার (১) পর ব্যাট হাতে ব্যর্থ হয়েছেন অধিনায়ক স্টিভেন স্মিথও (৮)। ওয়েড ফিরেছেন ৫ রান করে। অ্যাগার ৪১ রানে অপরাজিত থাকেন।

বাংলাদেশের হয়ে পাঁচটি এবং মেহেদী হাসান মিরাজ নেন তিনটি উইকেট। তাইজুল ইসলাম নেন একটি উইকেট।

এর আগে বাংলাদেশের ২৬০ রানের মাঝারি মানের সংগ্রহের কৃতিত্ব সাকিব ও তামিম ইকবালের। ১০ রানে ৩ উইকেট হারানোর পর চতুর্থ উইকেটে এই দুজন ১৫৫ রানের দুর্দান্ত জুটি গড়েন। আর তাতে করে লড়াই করার পুঁজি পায় টাইগাররা।

বাংলাদেশের হয়ে ৫০তম টেস্ট খেলতে নামা সাকিব ৮৪ রানের দায়িত্বশীল ইনিংস উপহার দেন। সমান ৫০তম টেস্ট খেলতে নামা তামিম করেন ৭১ রান। নাসির ২৩ এবং মুশফিক ও মিরাজ সমান ১৮ রানের ইনিংস খেলেন।

Use Facebook to Comment on this Post

Leave a Reply

You must be Logged in to post comment.

উপদেষ্টা : মাসুদ রানা, কাজী আকরাম হোসেন, খন্দকার সাঈদ আহমেদ, প্রকাশক : রোকেয়া চৌধুরী বেবী, সম্পাদক : রফিক আহমেদ মুফদি, বিশেষ প্রতিনিধি : মোস্তাক হোসেন, মনিরুল ইসলাম, চিফ রিপোর্টার: হানিফ চৌধুরী, ব্যবস্থাপনা সম্পাদক : জাকির হোসেন। যোগাযোগ: ২৭৮, পশ্চিম রামপুরা, ঢাকা-১২১৯। বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : রুম নম্বর ১২০৪, মৌচাক টাওয়ার, মালিবাগ মোড়, ঢাকা। মোবাইল : ০১৮১৯-০৬৭৫২৯, ই-মেইল: monirjjd@yahoo.com,

Site Hosted By: WWW.LOCALiT.COM.BD