September 28, 2021, 6:59 am

ইউএনওর ওপর হামলায় রবিউল জড়িত নয়

ইউএনওর ওপর হামলায় রবিউল জড়িত নয়

ঘোড়াঘাট থানার ইউএনও ওয়াহিদা খানম ও তার বাবা মুক্তিযোদ্ধা ওমর আলী হত্যা প্রচেষ্টা ও হামলার ঘটনায় আটক সাময়িক বরখাস্তকৃত কর্মচারী রবিউল ইসলামকে ওই মামলায় ফাঁসানোর অভিযোগ এনে সংবাদ সম্মেলন করেছে তার পরিবার। এ ঘটনায় রবিউল জড়িত নয় বলে দাবি করেন তারা।

গতকাল দিনাজপুর প্রেস ক্লাবের সম্মেলন কক্ষে রবিউল ইসলামের পরিবার এই সংবাদ সম্মেলন করে। সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন রবিউল ইসলামের চাচাতো ভাই রশিদুল ইসলাম।

রশিদুল ইসলাম বলেন, রবিউল ইসলাম ঘোড়াঘাট থানার ইউএনও কার্যালয়ে মালী পদে কর্মরত থাকাকালে ১১ জানুয়ারি তাকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়। তারপর থেকে সে বাড়িতেই অবস্থান করছিল। এর সঙ্গে রবিউলের কোনো সংশ্লিষ্টতা নেই। ডিবি পুলিশ ৯ সেপ্টেম্বর রাত দেড়টায় রবিউলকে বাড়ি থেকে ধরে নিয়ে যাওয়ার তিন দিন পর মিডিয়ার মাধ্যমে জানতে পারি, ইউএনও ও তার বাবাকে হামলার মামলায় ডিবি পুলিশ আমার ভাইকে আটক করেছে। পরে রিমান্ডে নিয়ে চাপ সৃষ্টি করে সে ইউএনও ওয়াহিদা খানম ও তারা বাবাকে একাই মেরেছে মর্মে তার দ্বারা বিজ্ঞ আদালতে জবানবন্দি প্রদানে বাধ্য করেছে।
প্রকৃত সন্ত্রাসীদের বাঁচানোর উদ্দেশে আমার ভাই রবিউলকে এই মামলায় ফাঁসানো হয়েছে। আমরা এই হামলার ঘটনায় সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ তদন্তপূর্বক মামলার সঙ্গে জড়িত প্রকৃত অপরাধীদের বিচার চাই। আরেক ভাই রহিদুল ইসলাম বলেন, আমার ভাইয়ের সঙ্গে এখন পর্যন্ত দেখা করতে পারিনি। মোবাইল ফোনেও কথা বলতে দেয়নি। কি অবস্থায় আছে, কেমন আছে তাও আমরা জানি না। আমরা এর সুষ্ঠু তদন্ত করে বিচার দাবি করছি। সংবাদ সম্মেলনে আটক রবিউল ইসলামের মা রহিমা খাতুন, চাচা এমাজ উদ্দিন, চাচি সুরাতন নেছা, চাচা ওয়াজ উদ্দিন, বড় ভাই আজিজুর রহমান, রহিদুল ইসলামসহ অর্ধশত এলাকাবাসী উপস্থিত ছিলেন।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © deshnews24
Hosted By LOCAL IT